যমুনা

৬৬/৭. যমুনা
Lethe (লিদি)/ ‘نسيان’ (নাসিয়ান)

ভূমিকা (Prolegomenon)
এটি বাঙালী পৌরাণিক চরিত্রায়ন সত্তা সারণী এর বৈতরণী পরিবারের গুরুত্বপূর্ণ একটি বাঙালী পৌরাণিক চারিত্রিক পরিভাষা। এর বাঙালী পৌরাণিক অশালীন মূলক সত্তা যোনিপথ। এর রূপান্তরিত মূলক বৈতরণী। এর বাঙালী পৌরাণিক রূপক পরিভাষা নদী। এর বাঙালী পৌরাণিক উপমান পরিভাষা উঠান, দুয়ার পথ। এর অন্যান্য বাঙালী পৌরাণিক চারিত্রিক পরিভাষা ডাঙ্গা বিরজা এবং এর বাঙালী পৌরাণিক ছদ্মনাম পরিভাষা খাল, নালা সুড়ঙ্গ

অভিধা (Appellation)
যমুনা (বাপৌচা)বি কালিন্দী, বাংলাদেশের নদী বিশেষ, উত্তর ভারতের নদী বিশেষ, lethe, ‘نسيان’ (নাসিয়ান) (প্র) . বর্তমান বাংলাদেশের সবচেয়ে প্রসস্ত নদী বিশেষ. বাঙালী পুরাণে বর্ণিত; যমের বোন, সূর্যের কন্যা (শ্ববি) জননপথ, vagina, সাওয়া (.ﺴﻭﺀﺓ) (রূপ্রশ) গণ্ডকী, গোদাবরী, ফল্গু, বিরজা, বৈতরণী, ব্রজ, ভবনদী, মন্দাকিনী, মায়ানদী, সুরধুনী, সুরনদী, অযোধ্যা (ইংপ) canal (ইপ) দজলা (ﺪﺠﻠﺔ), বরজখ (.ﺒﺮﺯﺥ) (দেপ্র) এটি বাঙালী পৌরাণিক চরিত্রায়ন সত্তা সারণী এর বৈতরণী পরিবারের বাঙালী পৌরাণিক চারিত্রিক পরিভাষা বিশেষ (সংজ্ঞা) . বর্তমান বাংলাদেশের সবচেয়ে প্রশস্ত নদীকে যমুনা বলা হয়. বাঙালী শ্বরবিজ্ঞানে ও বাঙালী পুরাণে; ভগ হতে ভৃগু পর্যন্ত দীর্ঘ যোনিনালীকে রূপকার্থে বাংলায় যমুনা বলা হয় (বাপৌছ) খাল, নালা ও যমুনা (বাপৌচা) ডাঙ্গা, বিরজা ও সুড়ঙ্গ (বাপৌউ) উঠান, দুয়ার ও পথ (বাপৌরূ) নদী (বাপৌমূ) বৈতরণী।

Lethe [লিদি] (gmps)n বিস্মৃতি, অতীত বিস্মরণ, forgetting, oblivion, ‘النسيان نهر’ (আবি) যমুনা, গণ্ডকী, গোদাবরী, পদ্মা, ফল্গু, বিরজা, বৈতরণী, ব্রহ্মপুত্র, মন্দাকিনী, সংযমনী, সুরধুনী, সুরনদী (ব্য্য) পাতালগামী যে নদীতে অবগাহন করে বা যে নদীর জল পান করে মানুষ তার অতীতকে সম্পূর্ণরূপে ভুলে যায়, The river subway in Hades; which drink or bathe in the water; Man forgets his past completely (প্র) গ্রিক পুরাণে বর্ণিত মৃত্যুপুরীর বিস্মরণের নদী, নারকী অঞ্চলের একটি নদী। বিদেহী আত্মাদের বাধ্য করা হয় বিস্মৃতি উৎপাদন পান করতে বা তারা যা করেছিল সেসব কিছু ভুলে যেতে বা পৃথিবীতে জীবিত থাকাকালীন যা জানতো (দেপ্র) এটি গ্রিক পৌরাণিক চরিত্রায়ন সত্তা সারণী এর Styx পরিবারের গ্রিক পৌরাণিক চারিত্রিক পরিভাষা ও গ্রিক পুরাণের একটি দেবী বিশেষ (সংজ্ঞা) . সাধারণত; গ্রিক পুরাণে বর্ণিত মৃত্যুপুরীর বিস্মরণের নদীকে গ্রিক ভাষায় Lethe (লিদি) বলা হয় . বাঙালী শ্বরবিজ্ঞানে ও বাঙালী পুরাণে; ভগ হতে ভৃগু পর্যন্ত দীর্ঘ যোনিনালীকে রূপকার্থে গ্রিক ভাষায় Lethe (লিদি) বলা হয় (বাপৌছ) খাল, নালা ও যমুনা (বাপৌচা) ডাঙ্গা, বিরজা ও সুড়ঙ্গ (বাপৌউ) উঠান, দুয়ার ও পথ (বাপৌরূ) নদী (বাপৌমূ) বৈতরণী {}

“A slow and silent stream,
Lethe, the river of oblivion, rolls
Her watery labyrinth, whereof who drinks
Forthwith his former state and being forgets,
Forgets both joy and grief, pleasure and pain.” Milton.

যমুনার কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ উদ্ধৃতি (Some important quotations of lethe)
১.   “কোথায় সে নিকুঞ্জবন, কোথায় সে যমুনা এখন, কোথায় সে গোপীনিগণ, আহা মরি।” (পবিত্র লালন- ৬৭৫)
২.   “ডুব না জেনে ডুব দিতে গিয়ে, কতজনা প্রাণ হারায়, প্রেমযমুনায় নাইতে গিয়ে, ডুবে মরিল ডাঙ্গায়।” (বলন তত্ত্বাবলী- ১২৬)
৩.   “মরণের আগে মরিয়া যেজন সেথা গিয়াছে, অফুরন্ত গুদাম ঘরের মহাজনী পাইয়াছে, জরামৃত যমুনা পাড়ে- দুয়েকজনে যাইতে পারে, আখেটি আখেটক মারে, বলন কয় তুলনা নাই।” (বলন তত্ত্বাবলী- ১৬০)

যমুনার কয়েকটি সাধারণ উদ্ধৃতি (Some ordinary quotations of lethe)
১.   “আমি কেন এলাম যমুনা ঘাটে, ঐ কালারূপ দেখলাম তটে, আমার কাঙ্খের কলসি কাঙ্খে রইল, দুই নয়নের জলে, কলসি ভেসে গেল।” (পবিত্র লালন- ৫৬৩/২)
২.   “আমায় ভিক্ষা ঝোলা দে সাজিয়ে, ওলো প্রাণসজনী, আমি জাত বেচিব মেঙ্গে খাবো, প্রেমযমুনার পানি।” (বলন তত্ত্বাবলী- ২৯)
৩.   “একদিন গিয়েছিলাম সে যমুনার ঘাটে, কত কথা মনে পড়ল গো পথে, আমি রাধে সারানিশি কেঁদে কাটাই, তবু তো দেখা দিলো না।” (পবিত্র লালন- ২৫১/২)
৪.   “এনে মহাজনের ধন, বিনাশ করলি ক্ষ্যাপা, সদ্য বাকির দায় যাবি যমুনায়, হবেরে কপালে দায়মাল ছাপা।” (পবিত্র লালন- ২২১/১)
৫.   “এসো গো দয়াল বন্ধু শ্যাম কালাচাঁন, মনের বনে ফুল ফুটেছে, প্রেমযমুনায় ভরা বান।” (বলন তত্ত্বাবলী- ৫৪)
৬.   “গঙ্গা যমুনা আর সরস্বতী নদী, ওঠেছে ঢেউ পাতাল ভেদি, পার হয়ে যাও, অকূল সমুদ্দরি।” (পবিত্র লালন- ৭৭৪/২)
৭.   “চাঁদ পাড়তে যমুনা ঘাটে, ডুবিস না রে মাথা কেটে, উদয়-অস্ত প্রতিমাসে, ভেদ জেনে ভাঙ্গরে বসে, ঐ চাঁদে জগৎ উজ্বালা, বলন কয় তুলনা নাই।” (বলন তত্ত্বাবলী- ১৩২)
৮.   “চামকুঠরী প্রেমযমুনা, মৎস্য ধরাই উপাসনা, মিঠাবারি প্রেমমালখানা, মৎস্য চলে কফিন পরা।” (বলন তত্ত্বাবলী- ১)
৯.   “তোরা যদি দেখিস কালারে, বলে দে খবর আমারে, নইলে আমি প্রাণ ত্যাজিব যমুনার জলে, কালার আশায় জীবন গেল একাকী।” (পবিত্র লালন- ৩২৪/৩)
১০. “দয়াল তোমার নাম নিয়ে, তরী ভাসালাম যমুনায়, তুমি নাবিক পারের মালিক, সে আশায় চড়েছি নায়।” (পবিত্র লালন- ৫১১/১)
১১.  “প্রেমযমুনা চৌদ্দভুবন, তিনঘাটে রয় তিনজন, মাঝখানে স্বরূপ কিরণ, ভাসছে সে নীরাকারে।” (বলন তত্ত্বাবলী- ৩০০)
১২.  “প্রেমযমুনার মিষ্টিজল, স্বরূপ কী চিনলি  না, দেখ দেখ প্রেমযমুনায়, চলছে সেথা ত্রিঝরণা।” (বলন তত্ত্বাবলী- ২৮৮)
১৩. “প্রেমযমুনার মিষ্টি পানি, সাধু গোঁসাই খায়রে শুনি, অধীন বলনকে দাও আনি, গুরু তোমায় ভজিবার।” (বলন তত্ত্বাবলী- ৯১)
১৪. “ফাঁদ পাতিয়া মানুষ ধরে প্রেমযমুনার ত্রিপুরে, মানুষ ধরে ভোর-দুপুরে জেলখানায় রাখে ভরে।” (বলন তত্ত্বাবলী- ১৯০)
১৫. “বলাই যাস না যমুনা ঘাটে, নিবে তোর মাথা কেটে।” (বলন তত্ত্বাবলী- ১৯৮)
১৬.  “বান এলে প্রেমযমুনায়, ধ্যান রাখলে মণিকোঠায়, বলন কাঁইজি বলে তাই, পাবি সে জল কৌশলে।” (বলন তত্ত্বাবলী- ১১৬)
১৭. “বৃন্দাবনের মাখন ছানাই, পেট তো ভরে নাই, নৈদে এসে দই চিড়াতে ভুলেছে কানাই, যার বেণুর সুরে ধেনু ফিরে, যমুনার জল উজান ধায়।” (পবিত্র লালন- ৯৬১/৩)
১৮. “মণিপুরী প্রেমতরী, কোন্ দিন হবে ক্ষীরধর, প্রেমযমুনার ত্রিমোহনায়, শ্যামবন্ধুর ঘর।” (বলন তত্ত্বাবলী- ২৩১)
১৯.  “মন তোর ত্রিবেণী ডিঙ্গিখানা, ভরা গাঙ্গে কেন বাইলি না, শুকায় গেলে প্রেমযমুনা, কী পাবিরে বাইলে তরী।” (বলন তত্ত্বাবলী- ১৭৯)
২০. “মনরে ত্রিধারা বয় এক নদেতে দেখ যমুনা পাড়ে, রক্তিম ধারা ওপরে বহে আর সাদা কালো ভিতরে, কোমল কোঠায় কর প্রণাম- সঙ্গে লয়ে গুরু ধিয়ান, কতজন হয় মহান- পেয়ে সেথা স্বরূপ মনি।” (বলন তত্ত্বাবলী- ২১৪)
২১.  “যমুনার জলে আমি, স্নান করতে যাব না, মাথায় আছে কালো কেশ, তাও রাখব না, কালো কাজল ভালো নয়, যেজন নয়নে দেয়, কালসাপে দংশিলে, বিষে অঙ্গ জ্বলে যায়।” (পবিত্র লালন- ৬৯১/২)
২২. “রূপ স্বরূপ চমৎকার লীলা আট প্রহরে চলে, হারায় মাণিক জন্মনালে সেই যমুনা শুকালে, বলন কয় দিন থাকতে- মিশে যাও গুরুর জাতে, এক জীবনে এ ধরাতে- পাবিরে স্বরূপ খনি।” (বলন তত্ত্বাবলী- ২১৪)
২৩. “সাঁতার শিখলি না, প্রেমযমুনার ডুবুরী হলি না, বিল বাওড়ে ফাও ডুবালি, ঐ অথৈজলে নামলি না।” (বলন তত্ত্বাবলী- ২৮৮)

যমুনার সংজ্ঞা (Definition of lethe)
সাধারণত; বর্তমান বাংলাদেশের সবচেয়ে প্রশস্ত নদীকে যমুনা বলে।

যমুনার আধ্যাত্মিক সংজ্ঞা (Theological definition of lethe)
বাঙালী শ্বরবিজ্ঞানে ও বাঙালী পুরাণে; ভগ হতে ভৃগু পর্যন্ত দীর্ঘ যোনিনালীকে রূপকার্থে যমুনা বলে।

যমুনার প্রকারভেদ (Variations of lethe)
বাঙালী শ্বরবিজ্ঞানে ও বাঙালী পুরাণে; যমুনা দুই প্রকার। যথা; ১. উপমান যমুনা ও ২. উপমিত যমুনা।

. উপমান যমুনা (Analogical lethe)
সাধারণত; বর্তমান বাংলাদেশের সবচেয়ে প্রশস্ত নদীকে উপমান যমুনা বলে।

. উপমিত যমুনা (Compared lethe)
বাঙালী শ্বরবিজ্ঞানে ও বাঙালী পুরাণে; ভগ হতে ভৃগু পর্যন্ত দীর্ঘ যোনিনালীকে উপমিত যমুনা বলে।

যমুনার পরিচয় (Identity of lethe)
এটি বাঙালী পৌরাণিক চরিত্রায়ন সত্তা সারণী এর বৈতরণী পরিবারের অধীন একটি বাঙালী পৌরাণিক চারিত্রিক পরিভাষা বিশেষ। সারাবিশ্বের সর্বপ্রকার সাম্প্রদায়িক ও পারম্পরিক পুস্তক-পুস্তিকায় এর ন্যূনাধিক ব্যবহার লক্ষ্য করা যায়। তবে; এ পরিভাষাটি একেক গ্রন্থে একেক ভাষায় ব্যবহার হওয়ার কারণে সাধারণ পাঠক-পাঠিকা ও শ্রোতাদের তেমন দৃষ্টিগোচর হয় না। সাধারণত; বর্তমান বাংলাদেশের সবচেয়ে প্রশস্ত নদীকে যমুনা বলা হয় কিন্তু শ্বরবিজ্ঞানে; ভগ হতে ভৃগু পর্যন্ত স্ত্রী জননপথকে বৈতরণী বা রূপকার্থে যমুনা বলা হয়। যেমন; স্বর্গীয় নদী বৈতরণী মানুষের দ্বারা সৃষ্টি নয়; বরং; দেবতাগণের দ্বারা সৃষ্টি। তেমনই; যমুনাও মানুষের দ্বারা সৃষ্টি নয়। বরং; স্বর্গীয় দেবতাগণের দ্বারা সৃষ্টি। এজন্য; যমুনাকে বৈতরণীর সাথে তুলনা করা হয়। অত্যন্ত বেদনার ব্যাপার হলো অধিকাংশ সাম্প্রদায়িক ও পারম্পরিক মনীষী ও বক্তা শ্বরবিজ্ঞানে ব্যবহৃত যমুনা বলতে কেবল বাংভারতের (বাংলাদেশ ও ভারত) যমুনা নদীকেই বুঝেন এবং বুঝিয়ে থাকেন।

তথ্যসূত্র (References)

(Theology's number formula of omniscient theologian lordship Bolon)

১ মূলক সংখ্যা সূত্র (Radical number formula)
"আত্মদর্শনের বিষয়বস্তুর পরিমাণ দ্বারা নতুন মূলক সংখ্যা সৃষ্টি করা যায়।"

রূপক সংখ্যা সূত্র (Metaphors number formula)

২ যোজক সূত্র (Adder formula)
"শ্বরবিজ্ঞানে ভিন্ন ভিন্ন মূলক সংখ্যা-সহগ যোগ করে নতুন যোজক রূপক সংখ্যা সৃষ্টি করা যায়; কিন্তু, গণিতে ভিন্ন ভিন্ন সংখ্যা-সহগ যোগ করে নতুন রূপক সংখ্যা সৃষ্টি করা যায় না।"

৩ গুণক সূত্র (Multiplier formula)
"শ্বরবিজ্ঞানে এক বা একাধিক মূলক-সংখ্যার গুণফল দ্বারা নতুন গুণক রূপক সংখ্যা সৃষ্টি করা যায়; কিন্তু, মূলক সংখ্যার কোন পরিবর্তন হয় না।"

৪ স্থাপক সূত্র (Installer formula)
"শ্বরবিজ্ঞানে; এক বা একাধিক মূলক সংখ্যা ভিন্ন ভিন্ন ভাবে স্থাপন করে নতুন স্থাপক রূপক সংখ্যা সৃষ্টি করা যায়; কিন্তু, মূলক সংখ্যার কোন পরিবর্তন হয় না।"

৫ শূন্যক সূত্র (Zero formula)
"শ্বরবিজ্ঞানে মূলক সংখ্যার ভিতরে ও ডানে শূন্য দিয়ে নতুন শূন্যক রূপক সংখ্যা সৃষ্টি করা যায়; কিন্তু, মূলক সংখ্যার কোন পরিবর্তন হয় না।"

< উৎস
[] উচ্চারণ ও ব্যুৎপত্তির জন্য ব্যবহৃত
() ব্যুৎপত্তির জন্য ব্যবহৃত
> থেকে
√ ধাতু
=> দ্রষ্টব্য
 পদান্তর
:-) লিঙ্গান্তর
 অতএব
× গুণ
+ যোগ
- বিয়োগ
÷ ভাগ

Here, at PrepBootstrap, we offer a great, 70% rate for each seller, regardless of any restrictions, such as volume, date of entry, etc.
There are a number of reasons why you should join us:
  • A great 70% flat rate for your items.
  • Fast response/approval times. Many sites take weeks to process a theme or template. And if it gets rejected, there is another iteration. We have aliminated this, and made the process very fast. It only takes up to 72 hours for a template/theme to get reviewed.
  • We are not an exclusive marketplace. This means that you can sell your items on PrepBootstrap, as well as on any other marketplate, and thus increase your earning potential.

পৌরাণিক চরিত্রায়ন সত্তা সারণী

উপস্থ (শিশ্ন-যোনি) কানাই,(যোনি) কামরস (যৌনরস) বলাই (শিশ্ন) বৈতরণী (যোনিপথ) ভগ (যোনিমুখ) কাম (সঙ্গম) অজ্ঞতা অন্যায় অশান্তি অবিশ্বাসী
অর্ধদ্বার আগধড় উপহার আশ্রম ভৃগু (জরায়ুমুখ) স্ফীতাঙ্গ (স্তন) চন্দ্রচেতনা (যৌনোত্তেজনা) আশীর্বাদ আয়ু ইঙ্গিত ডান
চক্ষু জরায়ু জীবনীশক্তি দেহযন্ত্র উপাসক কিশোরী অতীতকাহিনী জন্ম জ্ঞান তীর্থযাত্রা দেহাংশ
দেহ নর নরদেহ নারী দুগ্ধ কৈশোরকাল উপমা ন্যায় পবিত্রতা পাঁচশতশ্বাস পুরুষ
নাসিকা পঞ্চবায়ু পঞ্চরস পরকিনী নারীদেহ গর্ভকাল গবেষণা প্রকৃতপথ প্রয়াণ বন্ধু বর্তমানজন্ম
পালনকর্তা প্রসাদ প্রেমিক বসন পাছধড় প্রথমপ্রহর চিন্তা বাম বিনয় বিশ্বাসী ব্যর্থতা
বিদ্যুৎ বৃদ্ধা মানুষ মুষ্ক বার্ধক্য মুমুর্ষুতা পুরুষত্ব ভালোবাসা মন মোটাশিরা যৌবন
রজ রজপট্টি রজস্বলা শুক্র মূত্র যৌবনকাল মনোযোগ রজকাল শত্রু শান্তি শুক্রপাত
শুক্রপাতকারী শ্বাস সন্তান সৃষ্টিকর্তা শুক্রধর শেষপ্রহর মূলনীতি সন্তানপালন সপ্তকর্ম স্বভাব হাজারশ্বাস
ADVERTISEMENT
error: Content is protected !!